লকডাউনের মধ্যে বিয়ের আয়োজন, অতিথিদের দিয়ে ব্যাঙলাফ দেয়ালো পুলিশ(ভিডিও)

লকডাউনের মধ্যে বিয়ের আয়োজন, অতিথিদের দিয়ে ব্যাঙলাফ দেয়ালো পুলিশ(ভিডিও)

চলমান কঠোর লকডাউন অমান্য করে করা হয়েছিলো বিয়ের আয়োজন। আর তাতে অংশ নিয়েছিলেন অনেক অতিথিও। তবে তারা কেউই হয়তো কল্পনাও করতে পারেননি তাদের ভাগ্যে কী ঘটতে যাচ্ছে।

সবাই যখন বিয়ের অনুষ্ঠান উদযাপনে ব্যস্ত, আনন্দ-ফূর্তিতে মেতে ছিলেন, ঠিক তখন সেখানে এসে হানা দেয় পুলিশ।

লকডাউন লঙ্ঘনের সাজা হিসেবে ‘ব্যাঙ লাফ’ দিতে বাধ্য করা হয় তাদের।সম্প্রতি আলোচিত এই ঘটনা ঘটেছে ভারতের মধ্যপ্রদেশের ভিন্দ জেলার উমারি গ্রামে।

সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির খবরে বলা হয়, উমারি গ্রামের ওই বিয়েতে ৩০০ অতিথি এসেছিলেন। পুলিশ চলে আসলে অনেকে ছোটাছুটি করে পালিয়ে যান। কিন্তু যারা ধরা পড়েন তাদের পাশাপাশি সারিবদ্ধভাবে ব্যাঙের লাফ দিতে দিতে বাড়ি ফিরতে হয়েছে।

পুলিশের হাতে ১৭ জন অতিথি ধরা পড়েছিলেন। তাদেরকে ‘উচিত শিক্ষা’ দিতে রাস্তায় ব্যাঙের মতো লাফিয়ে চলতে বাধ্য করা হয়। ঠিকমত লাফাতে না পারলে লাঠির ঘাও পড়েছে পিঠে।

ভিডিওতে দেখা গেছে, সারি ধরে ব্যাঙের মতো লাফিয়ে চলেছেন সবাই। একজন ঠিকমতো লাফাতে পারছিলেন না, তাই পাশেই দাঁড়িয়ে থাকা এক পুলিশের লাঠির ঘা পড়ল তার পিঠে।

এভাবে সাজা দেওয়ার পর ভবিষ্যতে যাতে আর কোনো দায়িত্বজ্ঞানহীন আচরণ না হয় সে ব্যাপারে তাদের সাবধান করে দিয়ে ছেড়ে দিয়েছে পুলিশ।

গত সপ্তাহে বিহারের কৃষ্ণগঞ্জেও প্রায় একইরকম ঘটনা ঘটতে দেখা গেছে। সেখানেও করোনাবিধি উপেক্ষা করায় পুলিশ প্রায় ১২ তরুণকে বাজারের মধ্যে কনুইয়ের উপর ভর দিয়ে হামাগুড়ি এবং ‘ব্যাঙলাফ’ দিতে বাধ্য করেছিল।

মাহামারি নিয়ন্ত্রণে মধ্যপ্রদেশজুড়ে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। বিয়ের মতো সব অনুষ্ঠান সারতে হচ্ছে কম সংখ্যক অতিথি নিয়ে।

Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!