আশ্চর্য ঘটনা,বড়শি দিয়ে চিংড়ি মাছ ধরা নতুন পদ্ধতিটি সবাইকে তাক লাগালো! ভাইরাল ভিডিও

আশ্চর্য ঘটনা,বড়শি দিয়ে চিংড়ি মাছ ধরা নতুন পদ্ধতিটি সবাইকে তাক লাগালো! ভাইরাল ভিডিও

বড়শি হলো মাছ ধরার এক প্রকার সরাঞ্জম। এর অপর নাম মাছ ধরার ছীপ। যা মাছ বা মাছ জাতীয় প্রাণী ধরতে ফাঁদ হিসেবে ব্যবহার হয়। মানুষের হাতে এটি শতাব্দীরও বেশি সময় ধরে ব্যবহার হয়ে আসছে।

মিঠা ও নোনা জলের মাছ ধরার জন্য এটি বেশি ব্যবহার হয়। ফোবস কর্তৃক ২০০৫ সালে, মাছ ধরার শীর্ষ বিশ সরঞ্জামের মধ্যে বড়শিকে প্রধান সরাঞ্জাম হিসেবে নির্বাচিত করা হয়।

বড়শি সাধারণত বাঁশের ছিপ বা লৌহ দণ্ডের সাথে সুতা বরা চিকনাকৃতির রশির সাথে সংযুক্ত থাকে যা ধরা মাছকে খুব সহজে ফাঁদের মধ্যে নিয়ে আসে। মাছ ধরার জন্যে বিশ্বে প্রচুর পরিমাণে বড়শি রয়েছে।

বড়শির আকার, উদ্দেশ্য, এবং উপকরণ মাছ ধরার পদ্ধতির ওপর নির্ভরশীল। বড়শি দিয়ে সাধারণত সীমিত আকারে মাছ ধরার সম্ভব। বড়শি বিভিন্ন ধরনের কৃত্রিম, প্রক্রিয়াজাত, মৃত বা জীবিত মৎস্যজাতীয় প্রাথী বীট ( বেত মাছ ধরার ) ধরার জন্য তৈরি করা হয়। মাছ শিকারের কৃত্রিম যন্ত্র হিসেবে এটি কাজ করে।

বড়শি দিয়ে মাছ ধরার জন্যে প্রথমে প্রয়োজন ‘চার’। চার হলো মাছের খাবারকে- স্বাদ, গন্ধ ও বায়োকেমিক্যাল পদ্ধতিতে মিশ্রণ । কোন নির্দিষ্ট প্রজাতির মাছকে বা কিছু প্রজাতির মাছকে লক্ষ্য বড়শিতে যুক্ত খাবারের দিকে আকর্ষণ বড়শি ব্যবহারকারী এটি তৈরি করে।

প্রতিটি চারেই মূলত এক বা একাধিক আকর্ষণীয় মাছের খাবার দিয়ে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এগুলো এমন পরিকল্পিতভাবে ব্যবহার করা হয় যাতে তা মাছকে টোপের কাছে নিয়ে আসে। আর চারকে লক্ষ্য করে বড়শি ফেলতে হয়।

আশ্চর্য ঘটনা,বড়শি দিয়ে চিংড়ি মাছ ধরা নতুন পদ্ধতিটি সবাইকে তাক লাগালো! ভাইরাল ভিডিও

ভিডিওটি দেখতে

ক্লিক করুন

Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!