বেতনসহ অতিরিক্ত ছুটি পেতে একই নারীকে চারবার বিয়ে, তিনবার ডিভোর্স

বেতনসহ অতিরিক্ত ছুটি পেতে একই নারীকে চারবার বিয়ে, তিনবার ডিভোর্স

তাইওয়ানের রাজধানী তাইপেতে একটি ব্যাংকে কেরানি হিসেবে কাজ করতেন এক ব্যক্তি। অতিরিক্ত ছুটি পেতে অদ্ভুত কার্যক্রম চালিয়ে আলোচনায় এসেছেন তিনি।

নিউজএইটিনের খবরে বলা হয়, ৩৭ দিনের ব্যবধানে এক নারীকে তিনি চারবার বিয়ে করেছেন এবং তিন বার ডিভোর্স দিয়েছেন।

ওই ব্যক্তির নাম জানা যায়নি। তবে তিনি বিয়ে উপলক্ষে ৩২ দিন ছুটি দাবি করেছেন। ব্যাংকটি তার বিয়ের জন্য মাত্র আট দিনের ছুটি মঞ্জুর করেছে।

এরপর ওই ব্যক্তি নিজের পরিকল্পনা মতোই আদালতের দারস্থ হন।

আইনজীবী লিন বলেন, ২০২০ সালের ৬ এপ্রিল লোকটি প্রথম বিয়ে করেন এবং আট দিনের ছুটি কাটান। পরে তার স্ত্রীকে তিনি তালাক দেন এবং একই নারীকে ১৭ এপ্রিল বিয়ে করেন। ফের আট দিন ছুটি কাটিয়ে তার স্ত্রীকে ২৮ এপ্রিল ডিভোর্স দেন।

একদিন পর আবার বিয়ে করেন। তৃতীয় ডিভোর্সটি দেন ১১ মে। পরদিন তাকে চতুর্থবারের মতো বিয়ে করেন। বিয়ে উপলক্ষে ছুটির এমন নোংরা ব্যবহারে ক্ষুব্ধ হয়ে মাত্র আট দিনের ছুটি মঞ্জুর করে ব্যাংকটি।

ছুটি মঞ্জুর না হওয়ায় ওই ব্যক্তি তাইপে শহরের শ্রম ব্যুরোর আশ্রয় নেন। তার অভিযোগ, তার কর্মস্থল শ্রমিকদের ছুটির বিধানের দ্বিতীয় ধারা অমান্য করেছে।

আর বিয়ের ছুটি মঞ্জুর না করায় ব্যাংকটিকে ২০ হাজার তাইওয়ানি ডলার জরিমানা গুনতে হয়েছে।

পরে বিয়ের ছুটির অপব্যবহারের অভিযোগ তুলে আপিল কমিটিতে আবেদন করে ব্যাংকটি। সেখানেও ওই কেরানির পক্ষে রায় এসেছে।

Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!